এক লাখ ২০ হাজার ইয়াবা নিয়ে ধরা ৪ রোহিঙ্গা, এই বছর ১০৫ কোটি টাকার ইয়াবা জব্দ

এক লাখ ২০ হাজার ইয়াবা নিয়ে ধরা ৪ রোহিঙ্গা, এই বছর ১০৫ কোটি টাকার ইয়াবা জব্দ

আনছার হোসেন
সম্পাদক
কক্সবাজার ভিশন ডটকম

কক্সবাজারের সীমান্ত উপজেলা উখিয়ার রেজুআমতলী সীমান্ত এলাকা থেকে এক লাখ ২০ হাজার পিস বার্মিজ ইয়াবাসহ ৪ জনকে ধরেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। ধৃত ৪ জনই মিয়ানমারের রোহিঙ্গা নাগরিক। তারা প্রত্যেকেই উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা শিবিরের অধিবাসী।

ধৃত ৪ মাদক পাচারকারি হলেন কুতুপালং রোহিঙ্গা শিবিরের ১নং ক্যাম্পের এফ/৩ ব্লকের মৃত নুরুল বশরের ছেলে মো. সৈয়দ (৩৭), একই ক্যাম্পের এফ/১২ ব্লকের মৃত জাহিদ হোসেনের ছেলে এনায়েতুর রহমান (২১), ৭নং ক্যাম্পের সি/১১ ব্লকের মৃত শামসুরের ছেলে নুর আলম (৩০) ও ১নং ক্যাম্পের সি/১৩ ব্লকের মৃত সুলতান আহমদের ছেলে মো. জুবায়ের (২০)।

সোমবার (২৮ ডিসেম্বর) ভোর রাত সাড়ে ৩টার দিকে এই অভিযান চালানো হয়।

বিজিবির এই ব্যাটালিয়নটি চলতি বছর ১০৪ কোটি ৫১ লাখ ৭৯ হাজার ৬০০ টাকা মূল্যের ৩৪ লাখ ৮৩ হাজার ৯৩২ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট জব্দ করেছে।

বিজিবির কক্সবাজারস্থ ৩৪ ব্যাটালিয়নের উপ-অধিনায়ক ও অতিরিক্ত পরিচালক মো. আবদুল আজিজ ভূঁইয়া জানান, কতিপয় ইয়াবা ব্যবসায়ী বিপুল পরিমাণ ইয়াবা নিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করতে পারে- এমন গোপন সংবাদ পেয়ে বিজিবির রেজুআমতলী সীমান্ত চৌকির (বিওপি) একটি দল কক্সবাজার জেলার উখিয়া উপজেলার রাজাপালং ইউনিয়নের বাগানপাড়া ফিশারীঘাট এলাকায় ফাঁদ পাতেন। পরে ভোর রাত সাড়ে ৩টার দিকে ৪ ব্যক্তিকে সীমান্ত এলাকা থেকে পায়ে হেঁটে বাংলাদেশের আসতে দেখে সন্দেহভাজন হিসেবে তাদের আটক করা হয়।

তিনি জানান, আটকের পর ওই ৪ রোহিঙ্গার শরীরে অতিকৌশলে বাঁধা অবস্থায় লুঙ্গি দিয়ে মোড়ানো ব্যাগ তল্লাশি করে এক লাখ ২০ হাজার পিস বার্মিজ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। যার বাজার মূল্য ৩ কোটি ৬০ লাখ টাকা বলে মনে করা হচ্ছে।

বিজিবি কর্মকর্তা মো. আবদুল আজিজ ভূঁইয়া জানান, চলতি বছরের পহেলা জানুয়ারি থেকে এখন পর্যন্ত চোরাচালান ও মাদকবিরোধী অভিযান চালিয়ে ৩৪ বিজিবি ব্যাটালিয়ন ৩৪ লাখ ৮৩ হাজার ৯৩২ পিস বার্মিজ ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করেছে, যার বাজার মূল্য ১০৪ কোটি ৫১ লাখ ৭৯ হাজার ৬০০ টাকা। ওই সব অভিযানে ২৮৫ জন আসামিও আটক করা হয়।