করোনা : ভারতে একদিনেই হাজারের বেশি মৃত্যু

করোনা : ভারতে একদিনেই হাজারের বেশি মৃত্যু

ভারতে করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যু লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছেই। এবার করোনায় একদিনেই এক হাজারের বেশি মানুষের মৃত্যু দেখল ভারত। এর আগে যুক্তরাষ্ট্র, ব্রাজিলসহ আরও বেশ কিছু দেশে একদিনে হাজারের বেশি মৃত্যু হয়েছে। সেই তালিকায় যুক্ত হলো নরেন্দ্র মোদির দেশ।

এদিকে ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আরও ৬২ হাজারের বেশি মানুষ প্রাণঘাতী এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। গত কয়েকদিন ধরেই ৬০ হাজারের বেশি সংক্রমণ ধরা পড়েছে।

সোমবার কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সকালের বুলেটিনে জানানো হয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছে ৬২ হাজার ৬৪ জন। ফলে দেশটিতে আক্রান্তের সংখ্যা ২২ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। এখন পর্যন্ত সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ২২ লাখ ১৫ হাজার ৭৪।

ভারতে বর্তমানে করোনার অ্যাকটিভ কেস ৬ লাখ ৩৪ হাজারের কাছাকাছি। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে এক হাজার সাতজনের। ফলে এখন পর্যন্ত মারা গেছে ৪৪ হাজার ৩৮৬ জন। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ১৫ লাখ ৩০ হাজারের বেশি মানুষ ইতোমধ্যেই সুস্থ হয়ে উঠেছে। দেশটিতে সুস্থতার হার ৬৯ দশমিক ৩৩ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় সাত রাজ্যে সংক্রমণ সবচেয়ে বেশি। ভারতে সংক্রমণের ৭৫ শতাংশই এসব রাজ্যে। গত ২৪ ঘণ্টায় মহারাষ্ট্রে আক্রান্তের সংখ্যা ১২ হাজার ২৪৮, অন্ধ্র প্রদেশে ১০ হাজার ৮২০, তামিলনাড়ুতে ৫ হাজার ৯৯৪, কর্নাটকে ৫ হাজার ৯৮৫, উত্তরপ্রদেশে ৪ হাজার ৫৭১, বিহারে ৪ হাজার ১৫৭ এবং পশ্চিমবঙ্গে ২ হাজার ৯৩৯ জন।

এদিকে গত ২৪ ঘন্টায় মহারাষ্ট্রে মারা গেছে ৩৯০ জন, তামিলনাড়ুতে ১১৯ জন, কর্নাটকে ১০৭ জন, অন্ধ্র প্রদেশে ৯৭ জন, পশ্চিমবঙ্গে ৫৪ জন এবং গুজরাটে ২৪ জন। শুরু থেকেই মহারাষ্ট্র সংক্রমণের শীর্ষে রয়েছে। ওই রাজ্যে মোট আক্রান্ত হয়েছে ৫ লাখ ১৫ হাজার ৩৩২ জন। দ্বিতীয় স্থানে থাকা তামিলনাড়ুতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২ লাখ ৯৬ হাজার ৯০১ জন। অন্ধ্রপ্রদেশে এখন পর্যন্ত মোট আক্রান্ত হয়েছে ২ লাখ ২৭ হাজার ৮৬০ জন।

কর্নাটকে মোট আক্রান্ত হয়েছে ১ লাখ ৭৮ হাজার ৮৭ জন। তবে জুলাই থেকেই রাজধানী দিল্লিতে দৈনিক সংক্রমণ বৃদ্ধি কিছুটা কমতে দেখা গেছে। দিল্লিতে এখন পর্যন্ত মোট আক্রান্ত হয়েছে এক লাখ ৪৫ হাজার ৪২৭ জন। এছাড়া উত্তরপ্রদেশে মোট আক্রান্ত হয়েছে ১ লাখ ২২ হাজার ৬০৯ জন।

পশ্চিমবঙ্গে আক্রান্তের সংখ্যা ৯৫ হাজার ৫৫৪, তেলেঙ্গানায় ৮০ হাজার ৭৫১, বিহারে ৭৯ হাজার ৪৫১, গুজরাটে ৭০ হাজার ৯৬৫, আসামে ৫৮ হাজার ৮৩৭, রাজস্থানে ৫২ হাজার ৪৯৭ এবং ওডিশাতে ৪৫ হাজার ৯২৭ জন, হরিয়ানায় ৪১ হাজার ৬৩৫, মধ্যপ্রদেশে ৩৯ হাজার ২৫, কেরালায় ৩৪ হাজার ৩৩১, জম্মু-কাশ্মীরে ২৪ হাজার ৮৯৭ এবং পাঞ্জাবে ২৩ হাজার ৯০৩ জন আক্রান্ত হয়েছে।

error: Content is protected!! অন্যের নিউজ নিয়ে আর কতদিন! এবার নিজে কিছু লিখতে চেষ্টা করুন!!