ট্রাম্প নিষিদ্ধ করলেও ‘টিকটক’ কিনতে আলোচনা চালিয়ে যাবে মাইক্রোসফট

ট্রাম্প নিষিদ্ধ করলেও ‘টিকটক’ কিনতে আলোচনা চালিয়ে যাবে মাইক্রোসফট

টেক জায়ান্ট মাইক্রোসফট চীনের জনপ্রিয় ভিডিও শেয়ারিং অ্যাপ টিকটকের মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অপারেশন কেনার বিষয়ে আলোচনা চালিয়ে যাবে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে রোববার এক আলোচনার পর এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন মাইক্রোসফট প্রধান সত্য নাদেলা। খবর বিবিসির

মাইক্রোসফট বলছে, ডোনাল্ড ট্রাম্পের সম্মতি নিয়েই আমরা টিকটক কেনার আলোচনা চালিয়ে যাবো। যুক্তরাষ্ট্রে টিকটক পরিচালনার ফলে দেশটি কিভাবে আর্থিক ভাবে লাভবান হবে তার একটি তালিকা মার্কিন প্রশাসনকে দেয়া হবে।

এর আগে নির্বাহী আদেশ দিয়ে টিকটক নিষিদ্ধ করার হুমকি দিয়েছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

এছাড়াও টিকটক এর মার্কিন ব্যবহারকারীদের উপর গুপ্তচরবৃত্তি করছে দাবি করে ডোনান্ড ট্রাম্প ফেসবুক বিজ্ঞাপনে নির্বাচনী প্রচারণা চালাচ্ছিলেন।

বর্তমানে বিশ্বে টিকটক ব্যবহারকারী সংখ্যা ৫০ কোটির বেশি। এর মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রেই আট কোটি।

টিকটকের মূল প্রতিষ্ঠান বাইটড্যান্স হয়ত চীনের কাছে ব্যবহারকারীদের তথ্য হস্তান্তর করতে পারে। এমন উদ্বেগ ছড়িয়ে পড়েছে ওয়াশিংটনে।

তবে টিকটক বলছে, এখন পর্যন্ত চীনকে কোন প্রকার তথ্য সরবরাহ করা হয়নি। এমনকি ব্যবহারকারীর তথ্য চীন চাইলেও তা টিকটক সরবরাহ করতে বাধ্য নয়।

গত ৩০ জুন ভারত টিকটক, উইচ্যাটসহ চীনা ৫৯টি অ্যাপ বন্ধ করে দেয়। নয়াদিল্লি এসব অ্যাপকে দেশের জন্য বিপজ্জনক অভিযোগ তুলে তা বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নেয়।

error: Content is protected!! অন্যের নিউজ নিয়ে আর কতদিন! এবার নিজে কিছু লিখতে চেষ্টা করুন!!