টেকনাফের আরও এক নারী চিকিৎসক ‘করোনা’র শিকার

কক্সবাজারে আজও ২৪ জনের করোনা টেষ্ট, রিপোর্ট সবারই ‘নেগেটিভ’

নুরুল হক, টেকনাফ
কক্সবাজার ভিশন ডটকম

কক্সবাজারের সীমান্ত উপজেলা টেকনাফের উপজেলা হাসপাতালের আরও এক নারী চিকিৎসক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। ৩৫ বছর বয়সী ওই চিকিৎসক বর্তমানে জাতিসংঘের অভিবাসন সংস্থা আইওএমের নিয়োগপ্রাপ্ত টেকনাফ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গাইনী বিশেষজ্ঞ হিসেবে কর্মরত রয়েছেন।

শুক্রবার (১ মে) বিকেলে এই বিষয়টি নিশ্চিত করেন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. টিটু চন্দ্র শীল।

তিনি জানান, আইওএমের পক্ষ থেকে নিয়োগপ্রাপ্ত টেকনাফে স্থাস্থ্য বিভাগে কর্মরত আরও এক নারী চিকিৎসকের করোনা পজিটিভ রিপোর্ট এসেছে। ইতোপূর্বে আরো এক নারী চিকিৎসক করোো আক্রান্ত হয়েছেন।

তিনি জানান, এর আগের দিন এই চিকিৎসক আরো কয়েকজনের নমুনা সংগ্রহ করে করোনা পরীক্ষার জন্য কক্সবাজার মেডিকেল কলেজে পাঠানো হয়েছিল। শুক্রবার দুপুরে রিপোর্ট পাওয়া গেছে। এতে এই চিকিৎসকের করোনার রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে।

ডা. টিটু শীল বলেন, ‘এই চিকিৎসক বর্তমানে চট্রগ্রামে অবস্থান করছেন। করোনা রিপোর্টের খবর পাওয়ার পরই তিনি সেখানে আইসোলেশনে ভর্তি হয়েছেন।’

আতঙ্কিত না হয়ে, সবাইকে সতর্কতার সঙ্গে নিজ নিজ বাসায় থাকার অনুরোধ জানিয়েছেন ডা. টিটু চন্দ্র শীল।

এদিকে করোনা সন্দেহে টেকনাফ উপজলায় পহেলা মে পর্যন্ত ৩২০ জনের নমুনা সংগ্রহ করে করোনা পরীক্ষার জন্য কক্সবাজার মেডিকেল কলেজে পাঠানো হয়েছিল। তাদের মধ্যে দুই নারী চিকিৎসকসহ ৫ জনের শরীরে পজেটিভ এসেছে। তবে এখনও বেশ কয়েকজনের রিপোর্ট পাওয়া যায়নি।

error: Content is protected!! অন্যের নিউজ নিয়ে আর কতদিন! এবার নিজে কিছু লিখতে চেষ্টা করুন!!