সৈকতের তীরে ডাব ও ফিশ ফ্রাই খেয়ে মারা গেলেন পর্যটক সৌরভ

সৈকতের তীরে ডাব ও ফিশ ফ্রাই খেয়ে মারা গেলেন পর্যটক সৌরভ

বিশেষ প্রতিবেদক
কক্সবাজার ভিশন ডটকম

কক্সবাজারে বেড়াতে এসে সমুদ্র তীরে ডাব ও ফিশ ফ্রাই খেয়ে মারা গেছেন ফেরদৌস আলম খান সৌরভ (৩৫) নামের এক পর্যটক। তিনি নিজের স্ত্রীকে সাথে নিয়ে শুক্রবার সকালে কক্সবাজার এসেছিলেন। সন্ধ্যায় তিনি মারা যান।

হাসপাতাল ও পারিবারিক সুত্র মতে, ডাব ও ফিস ফ্রাই খেয়ে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে নেয়া হয়। রাত সাড়ে ৯টার দিকে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

দেশি ওই পর্যটকের বাড়ি সিরাজগঞ্জ সদরের মুজিব সড়ক এলাকায়। তিনি ওই এলাকার মৃত নবিউল আলম খানের ছেলে। চাকরি সূত্রে বর্তমানে তিনি ঢাকার মিরপুর ১নং এলাকায় স্বস্ত্রীক বাস করেন।

২০১৬ সালে ফেরদৌস আলম খান সৌরভের সাথে ফারজানা আকতারের বিয়ে হয়। কিন্তু তাদের কোন সন্তান ছিল না।

ফেরদৌস খান সৌরভের স্ত্রী ফারজানা আকতার জানান, তারা দুইজন শুক্রবার সকালে কক্সবাজারে পৌঁছান। তারা কলাতলীর হোটেল কক্স-ইনের ৩০৪ নাম্বার কক্ষে উঠেন।

তিনি জানান, হোটেল থেকে সন্ধ্যার দিকে তারা বের হয়ে সুগন্ধ্যা পয়েন্টে গিয়ে ডাব ও ফিশ ফ্রাই খান। কিছুক্ষণ পর সৌরভ অসুস্থ বোধ করলে তাকে স্থানীয় একটি ফার্মেসীতে দেখানো হয়। ওই ফার্মেসী থেকে তাকে দ্রুত হাসপাতালে নেয়ার পরামর্শ দেয়া হয়।

কক্সবাজার সদর হাসপাতালের দায়িত্বরত চিকিৎসক ডা. এসএম নাওশাদ রিয়াদ সাংবাদিকদের জানান, ওই ব্যক্তিকে হাসপাতালে আনার আগেই মারা যান। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে, হৃদরোগ অথবা ফুড পয়জনিংজনিত কারণে তার মৃত্যু হতে পারে। তবে ময়না তদন্ত করলে বিস্তারিত জানা যাবে।

এদিকে সৌরভের পারিবারিক সুত্র জানিয়েছেন, তার মৃত্যুর খবর পেয়ে ছোট ভাই ঢাকা থেকে কক্সবাজারের দিকে রওয়ানা দিয়েছেন। তিনি শনিবার সকালে কক্সবাজার পৌঁছার কথা রয়েছে।

error: Content is protected!! অন্যের নিউজ নিয়ে আর কতদিন! এবার নিজে কিছু লিখতে চেষ্টা করুন!!