কক্সবাজারে ১০ টাকা মাস্ক বিক্রি হচ্ছে ২০০ টাকায়, ভ্রাম্যমান অভিযানে জরিমানা

কক্সবাজারে ১০ টাকা মাস্ক বিক্রি হচ্ছে ২০০ টাকায়, ভ্রাম্যমান অভিযানে জরিমানা

নিজস্ব প্রতিবেদক
কক্সবাজার ভিশন ডটকম

দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হওয়ার সাথে সাথেই কক্সবাজারের বিভিন্ন এলাকায় মাস্ক বিক্রি হচ্ছে ২/৩ গুণ বেশি দামে। এক শ্রেণীর অসাধু ব্যবসায়ী করোনা ভাইরাসের আতঙ্কের সুযোগ নিয়ে এই অপকর্ম চালিয়ে যাচ্ছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, করোনা ভাইরাসের খবর প্রচার হওয়ার পর থেকে ব্যবসায়ীরা হঠাৎ ১০ থেকে ২০ টাকা দামের মাস্ক বিক্রি করছেন ২০০ থেকে ২৫০ টাকা পর্যন্ত।

হাঁচি-কাশিতে ছড়ানো এই রোগটি থেকে সুরক্ষা পেতে সারাদেশের মতো কক্সবাজারেও মাস্ক ব্যবহার বেড়েছে কয়েকগুণ। এতে বাজারে মাস্কের দামও বাড়িয়ে দিয়েছেন অসাধু ব্যবসায়ীরা।

এদিকে মাস্কের বাজার নিয়ন্ত্রণে রাখতে কক্সবাজার শহরে অভিযান চালিয়েছে কক্সবাজার জেলা প্রশাসন। সোমবার (৯ মার্চ) বিকেলে কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আরফাত হোসাইনের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়। ওই সময় কক্সবাজার শহরের পুরান পানবাজার সড়কের আল নিজাম মার্কেটস্থ নুর সার্জিকেল নামের একটি দোকানে মাত্রাতিরিক্ত দামে মাস্ক বিক্রির অভিযোগে ভোক্তা অধিকার আইনে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা ও দোকানের মালিককে সতর্ক করে দেয়া হয়েছে।

এছাড়াও অন্যান্য দোকান মালিকদেরও সতর্ক করে দেন ভ্রাম্যমান আদালত।

অভিযানে নেতৃত্বদানকারি কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আরফাত হোসাইন জানান, ব্যবসায়ীরা সংকটময় মুহুর্তকে পুঁজি করে বেশি দামে মাস্ক বিক্রি করছিলেন। হঠাৎ এমন খবরে বাজারে অভিযানে নেমে ঘটনার সত্যতা মেলে।

তিনি বলেন, জানতে পারি ১০-২০ টাকার একটি মাস্ক ২৫০ টাকা দামে পর্যন্ত বিক্রি করছেন এক ধরণের অসাধু ব্যবসায়ী।

তিনি আরও বলেন, আমরা সিভিল পোশাকে লোক পাঠানোর পর সত্যতা পাওয়ার পরই সোমবার বিকেলে অভিযান চালানো হয়।

মাস্কের এই বাজার নিয়ন্ত্রণে জেলা প্রশাসনের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানান নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আরফাত হোসাইন। তিনি বলেন, শুধু কক্সবাজার শহরে নয়, পুরো কক্সবাজারেই এ অভিযান নিয়মিত চালানো হবে। ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতরের সহকারী পরিচালক অভিযান চলাকালে প্রসিকিউনের দায়িত্ব পালন করেন।

error: Content is protected!! অন্যের নিউজ নিয়ে আর কতদিন! এবার নিজে কিছু লিখতে চেষ্টা করুন!!