টেকনাফে এবার পুলিশ-ডাকাত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ প্রাণ গেল ৩ ডাকাতের

শহরে দু’টি লাশ পড়লো মধ্যরাতে, তাদের একজন ছিনতাইকারি রিফাত

হেলাল উদ্দিন
নিজস্ব প্রতিনিধি, টেকনাফ
কক্সবাজার ভিশন ডটকম

কক্সবাজারের সীমান্ত উপজেলা টেকনাফে পুলিশের সাথে ডাকাত দলের ‘বন্দুকযুদ্ধে’ অস্ত্র, মাদক, হত্যাসহ বিভিন্ন মামলার পলাতক তিন আসামি নিহত হয়েছেন। ওই সময় ৩ পুলিশ সদস্য আহত এবং অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়।

বৃহস্পতিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) উপজেলার বাহারছড়া পাহাড়ী এলাকায় এই ঘটনা ঘটে।

নিহত হলেন উখিয়ার বালুখালী ১৭ নাম্বার রোহিঙ্গা বস্তির ফজল আহাম্মদের ছেলে মোঃ জামিল (২০), একই রোহিঙ্গা বস্তির নবী হোসেনের ছেলে মোঃ আসমত উল্লাহ (২১) ও টেকনাফের বাহারছড়া নতুনপাড়া এলাকার মৃত মোঃ আলীর ছেলে মোঃ রফিক (২৪)।

আহত পুলিশ সদস্যরা হলেন এএসআই হাবিব উল্লাহ, কনস্টেবল রাকিবুল ও দেলোয়ার।

টেকনাফ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ বলেন, ১৮ সেপ্টেম্বর রাতে হত্যা, অস্ত্র ও মাদক মামলায় জড়িত থাকা এবং বহু মামলার পলাতক ৩ জন পলাতক আসামীকে আটকের পর তাদের স্বীকারোক্তিতে ১৯ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার ভোররাতে বাহারছড়া শামলাপুর ঢালা এলাকায় জঙ্গলের ভিতর অস্ত্র ও ডাকাত দলের চোরাই করা পণ্য উদ্ধার করার জন্য যায়। ওই সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে উৎপেতে থাকা সহযোগী অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে এলোপাতাড়ি গুলি ছুঁড়তে থাকে। পরে পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালায়। এতে অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা সু-কৌশলে পালিয়ে যায়।

উভয়পক্ষের এই গোলাগুলির ঘটনাটি নিয়ন্ত্রণে আসার পর ঘটনাস্থল থেকে আগে আটক হওয়া ওই ৩ আসামীকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। পরে তাদের টেকনাফ উপজেলা হাসপাতালে নিয়ে গেলে দায়িত্বরত চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠান। সেখানে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের ৩ জনকে মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনাস্থল থেকে দেশীয় তৈরী ৩টি এলজি, ৬ রাউন্ড তাজা গুলি, ৮ রাউন্ড গুলির খালি খোসা উদ্ধার করেছে পুলিশ।

এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা রুজু করা হবে বলে জানান ওসি প্রদীপ।

কক্সবাজার ভিশন.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




এই পাতার আরও সংবাদ
error: Content is protected !!