ডিসি সম্মেলনের প্রস্তাবনা

যে সব ক্ষমতা চান কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক কামাল হোসেন

যে সব ক্ষমতা চান কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক কামাল হোসেন

নিজস্ব প্রতিবেদক
কক্সবাজার ভিশন ডটকম

আগামি জেলা প্রশাসক সম্মেলনে দেশের ৬৩ জন জেলা প্রশাসকের মতো কক্সবাজার জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেনও অংশ নেবেন। সেই সম্মেলনে উপস্থাপনের জন্য সারাদেশের জেলা প্রশাসকরা নিজেদের বিভিন্ন প্রস্তাবণা লিখিত আকারে মন্ত্রী পরিষদ বিভাগে পাঠিয়েছেন। মন্ত্রী পরিষদ বিভাগ ৩৩৩টি প্রস্তাব সম্মেলনে উপস্থাপনের জন্য বাছাই করেছে। সেই প্রস্তাবনায় রয়েছে কক্সবাজার জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেনের পাঠানো প্রস্তাবনাও।

সংশ্লিষ্ট সূত্র মতে, জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেনের পাঠানো অধিকাংশ প্রস্তাবনাই সম্মেলনে উপস্থাপনের জন্য বাছাই তালিকায় রয়েছে।

কামাল হোসেনের প্রস্তাবনায় কী আছে
কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন যে সব প্রস্তাবনা ডিসি সম্মেলনের জন্য পাঠিয়েছেন তার মধ্যে শুরুতেই রয়েছে, জেলা প্রশাসকের অধীনেই ডিসি-এডিসিদের নিরাপত্তার জন্য আলাদা এক প্লাটুন সশস্ত্র পুলিশ ফোর্সের বিধান রাখা। বর্তমানে সারাদেশে পুলিশ সুপারের নিয়ন্ত্রণে পুলিশ রয়েছে। এই বিধানে পুলিশ সুপারের নিয়ন্ত্রণের বাইরে প্রতি জেলায় এক প্লাটুন পুলিশ থাকবে।

দুই নাম্বার প্রস্তাবনায় আছে- দেশজুড়ে জেলা বাজেট প্রণয়নে জেলা প্রশাসকদের ক্ষমতা দেয়া। এই প্রস্তাবনার পক্ষে জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন যুক্তি দেখিয়েছেন, কেন্দ্রীয়ভাবে বাজেট প্রণয়ন করে মন্ত্রণালয় ও বিভাগের মাধ্যমে বাস্তবায়ন করায় জেলা প্রশাসকরা এ বিষয়ে সঠিক ভাবে অবহিত থাকেন না।

প্রস্তাবে তিনি বলেন, এলজিইডি, গণপূর্তসহ সব দপ্তরে গৃহীত উন্নয়ন কর্মকা-, জেলার চাহিদা অনুযায়ী কম বরাদ্দ ও ব্যয় সম্পর্কে জেলা প্রশাসকরা অবগত হন না। এতে জনসাধারণের কাছে সরকারের উন্নয়ন কর্মকা-ের সার্বিক চিত্র স্পষ্টভাবে তুলে ধরা যায় না।

ডিসি কামাল হোসেনের তিন নাম্বার প্রস্তাবনায় রয়েছে- জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা বা সচিবকে ম্যাজিস্ট্রেসি ক্ষমতা দেয়া। যাতে দেশের জেলা পরিষদ সমুহের কর্মকান্ড আরো গতিশীল হয় ও কার্যপরিধির আওতা বাড়ে।

সূত্র মতে, দেশের জেলা পরিষদ নিয়ে জেলা প্রশাসক সম্মেলনের কার্যসূচীতে রাখা এটি একমাত্র প্রস্তাবনা।

এছাড়াও অন্য জেলা প্রশাসকদের প্রস্তাবনা গুলোর মধ্যে বিসিএস (প্রশাসন) ক্যাডারদের জন্য দেশের বিভিন্ন বাহিনীর মতো করে নতুন বিশেষায়িত ব্যাংক ও জনপ্রশাসন বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার প্রস্তাব রয়েছে।

রোববার (১৪ জুলাই) থেকে শুরু হতে যাওয়া জেলা প্রশাসক সম্মেলন উপলক্ষে সব জেলার জেলা প্রশাসকরা এখন ঢাকায় রয়েছেন। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে ডিসি সম্মেলনের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

কক্সবাজারের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) আশরাফুল আফসার (উপসচিব) এখন কক্সবাজারের ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন।

এদিকে শনিবার (১৩ জুলাই) বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে সম্মেলনের প্রাক-প্রস্তুতির জন্য জেলা প্রশাসকদের অভ্যন্তরীণ ব্রিফিং দেয়া হবে। এছাড়াও বার্ষিক উন্নয়ন প্রকল্প প্রস্তাবনা (ডিপিপি) প্রণয়নের ক্ষমতা ডিসিদের দেয়ার জন্যও দাবি জানিয়েছেন চাঁদপুরের ডিসি।

জেলার ভৌগোলিক সীমার মধ্যে গৃহীত এক কোটি টাকার উর্ধের প্রকল্প হলে ডিসিদের অনুমতি নেয়ার প্রস্তাব পাঠিয়েছেন গোপালগঞ্জের ডিসি।

প্রতিবছর অন্তত এক কোটি টাকা স্বাধীনভাবে খরচ করতে থোক বরাদ্দ চেয়েছেন ডিসিরা। বরাবরের মতো এবারও ফৌজদারি অপরাধ আমলে নেয়ার জন্য প্রয়োজনীয় বিচারিক ক্ষমতা চেয়েছেন তারা।

চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক ইউনিয়ন পরিষদের মেয়াদ শেষে নির্বাচন অনুষ্ঠানে আইনি জটিলতা থাকলে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নে প্রশাসক নিয়োগের প্রস্তাব করেছেন।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণসংক্রান্ত জেলা কমিটি পুনর্বিন্যাস করে সংসদ সদস্যকে উপদেষ্টা ও ডিসিদের সভাপতি করার প্রস্তাব দিয়েছেন ঝালকাঠির ডিসি।

উপজেলা শিক্ষা কমিটি পুনর্গঠন করে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানকে উপদেষ্টা ও ইউএনওকে সভাপতি করার প্রস্তাবও করেছেন ঝালকাঠির ডিসি।

পাঁচ দিনের ডিসি সম্মেলন শেষ হবে আগামি বৃহস্পতিবার (১৮ জুলাই)।

কক্সবাজার ভিশন.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




এই পাতার আরও সংবাদ
error: Content is protected !!