বিচক্ষণ ও অনুভূতিশীল পাত্র চাইছেন জয়া

বিচক্ষণ ও অনুভূতিশীল পাত্র চাইছেন জয়া

দুই বাংলার এই সময়ের আলোচিত অভিনেত্রী জয়া আহসানের প্রেম-ভালোবাসা নিয়ে কম জলঘোলা হয়নি। সর্বশেষ ভারতীয় চিত্র পরিচালক সৃজিত মুখার্জিকে জড়িয়েও অসংখ্য খবর প্রকাশ করে দুই বাংলার গণমাধ্যম। কিন্তু সব খবরকেই মিথ্যা এবং ভিত্তিহীন বলে হেসে উড়িয়ে দিয়েছেন এই অভিনেত্রী। পরিবার থেকে বিয়ের জন্য চাপ দিলেও এখনই বিয়ে করবেন না বলে জানিয়েছেন তিনি। ভারতের প্রভাবশালী ইংরেজি দৈনিক ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস তাদের বিনোদন ও লাইফস্টাইলভিত্তিক ম্যাগাজিন ‘ইনডালজ’-এ জয়াকে নিয়ে ১৫ মার্চ একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে। সেখানে তার অভিনয়, ব্যক্তিজীবনের কিছু প্রসঙ্গ উঠে এসেছে।

এখানে জয়া আহসান বলেছেন, টালিউডের অভিনেত্রীদের সঙ্গে তার দারুণ বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক। সেদিক থেকে দেখলে তার কিন্তু কলকাতায় তেমন কোনো ঘনিষ্ঠ বন্ধু নেই। এ প্রসঙ্গে জয়া বলেন, ‘সময় বের করে আড্ডা দেয়া আমার জন্য বেশ কঠিন। শুধু তাই নয়, আমার তো প্রেম করারও সময় নেই।’

প্রেমের সময় নেই, তাহলে কি বিয়ের কথা ভাবছেন না অভিনেত্রী? পছন্দের কেউ কি তবে নেই? প্রশ্ন শুনে অভিনেত্রী হেসে উঠলেন। বললেন, ‘এখন পর্যন্ত না। বিয়ের পরও করা যাবে। এত দ্রম্নত আমি ঘরোয়া পরিবেশে নিজেকে বন্দি করতে চাচ্ছি না। আমি আরও কাজ করতে চাই। পরিবার থেকে অবশ্য বিয়ের চাপ আসছে। কিন্তু আমি না শোনার ভান করে বসে থাকি।’

এরপর প্রশ্ন আসে, তিনি তার জীবনসঙ্গীর কাছে কী কী গুণ আশা করেন? জয়া বললেন, ‘আমি চেহারাকে এত গুরুত্ব দেই না। আমার জীবনসঙ্গীকে অবশ্যই বিচক্ষণ, অনুভূতিশীল এবং প্রতিশ্রম্নতিশীল মানুষ হতে হবে। একজন সৃজনশীল ব্যক্তিকে কদর করার মতো মন-মানসিকতা থাকতে হবে তার।’

লম্বা এই প্রতিবেদনে জয়া আরও বলেছেন, তিনি তার পোষা কুকুর ক্লেওর সঙ্গে সময় কাটাতে ভালোবাসেন। আর ভালোবাসেন তার বাগানের যতœ নিতে। যখন হাতে কাজ থাকে না, তখন তিনি নিজের মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকতে পছন্দ করেন। অনেকেই জানেন না, তিনি ভীষণ লাজুক। গণমাধ্যম থেকে দূরে থাকতেই স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেন।