মেহেদীর রং না মুছতেই ঝুলন্ত লাশ নববধূর!

মেহেদীর রং না মুছতেই ঝুলন্ত লাশ নববধূর!

বিয়ের মেহেদীর রং না মুছতেই ঝরে গেলো এক তরুণী নববধূর প্রাণ। কক্সবাজার সদর উপজেলার ঈদগাঁও ইউনিয়নের কালিরছড়া গ্রামে ওই নববধূর ঝুলন্ত লাশ মিলেছে।

নিহত নববধূর নাম আনোয়ারা বেগম। তিনি ওই এলাকার ফারুক আহমদের সদ্যবিবাহিতা স্ত্রী ।

৫ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে এ মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটে।

স্থানীয়রা জানান, নববধূ আনোয়ারা বেগমকে বেলা ১২টার দিকে ঘরের নিজ কক্ষে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় ঝুলন্ত দেখতে পান তার শাশুড়ি। তিনি প্রতিবেশীদের এ ঘটনা জানালে তারা তাৎক্ষণিক ঘটনাটি পুলিশকে অবগত করেন। ঈদগাঁও তদন্ত কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ইনচার্জ) মোঃ আসাদুজ্জামানের নির্দেশে এসআই মোহাম্মদ আবু বক্কর ছিদ্দিকের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল লাশ উদ্ধারে ঘটনাস্থলে যান।

নববধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধারের ঘটনা নিশ্চিত করেছেন তদন্ত কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ইনচার্জ) মোঃ আসাদুজ্জামান। তবে হত্যা, না আত্মহত্যা ময়না তদন্ত প্রতিবেদন না পাওয়া পর্যন্ত বলা যাচ্ছে না বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

স্থানীয়দের মতে, ৩ মাস আগে ফারুকের সাথে সামাজিক ভাবে বিয়ে হয় নিহত আনোয়ারার। এরপর থেকেই পরিবারে ঝগড়া লেগেই থাকতো। তারই জের ধরে হয়তো হত্যা বা আত্মহত্যার ঘটনাটি সংঘটিত হতে পারে বলে ধারণা স্থানীয়দের।

এদিকে নববধূর এই মর্মান্তিক মৃত্যুকে কেউ মেনে নিতে পারছেন না। তাই তারা ঘটনাটির প্রকৃত রহস্য উদঘাটনে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।