নাইক্ষ্যছড়িতে বজ্রপাতে একই পরিবারের পুত্রবধূ নিহত, আহত মা ছেলে ও আরেক পুত্রবধূ

বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার বাইশারী ইউনিয়নের দক্ষিণ বাইশারী গ্রামে বজ্রপাতে একই পরিবারের মা, ছেলে ও দুই পুত্রবধূ হতাহত হয়েছেন।

ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) সকাল ৯টা ১৫ মিনিটের সময় নিজ বসতবাড়িতে হতাহতের এই ঘটনা ঘটে।

হতাহতরা হলেন মা মরিয়ম বেগম (৫০), ছেলে এরশাদুল্লাহ (২৫), পুত্রবধূ আছমা বেগম (২৩) ও পুত্রবধূ জান্নাত আরা (২৪)। এদের মধ্যে পুত্রবধূ জান্নাত আরা মারা গেছেন।

প্রত্যক্ষদর্শী গৃহকর্তা আলী আকবর জানান, হঠাৎ সকাল ৯টা ১৫ মিনিটের সময় ঝড়ো হাওয়া ও বৃষ্টি শুরু হলে বাড়ির লোকজন উঠানের জিনিষপত্র বাড়িতে ঢোকানোর কাজে ব্যস্ত ছিলেন। ছেলে এরশাদুল্লাহ ঘরের চালের উপর টিন ঠিক করছিল। ওই সময় বজ্রপাতের বিকট শব্দ তিনি শুনেন। পরে দেখতে পান ছেলে ঘরের চালের উপর শোয়া অবস্থায় ও বাকীরা উঠানে দরজার পাশে শোয়া অবস্থায় পড়ে রয়েছে।

খবর পেয়ে আশপাশের লোকজন এসে ঘটনাস্থল থেকে উদ্বার করে হাসপতালে নেয়ার পথে শহিদুল্লাহর স্ত্রী জান্নাত আরা মারা যায়। বাকীদের ঈদগাও মেডিকেল সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন বাইশারী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের সহকারী ইনচার্জ মাইনুদ্দিন, এএসআই জাকির হোসেন।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বাইশারী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ একেএম হাবিবুল ইসলাম বলেন, বিষয়টি বজ্রপাতের কারণে হয়েছে। বিষয়টি উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে।