টেকনাফে দুই ‘মাদক বিক্রেতার’ গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার

‘বন্দুকযুদ্ধে’ বাবার মৃত্যুর খবর শুনে পিএসসি পরীক্ষা দিতে গেলো সৈয়দ নূর!

‘বন্দুকযুদ্ধে’ বাবার মৃত্যুর খবর শুনে পিএসসি পরীক্ষা দিতে গেলো সৈয়দ নূর!

সীমান্ত উপজেলা টেকনাফে দুই ‘মাদক বিক্রেতার’ গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতরা হলেন টেকনাফের হ্নীলা ইউনিয়নের লেদা এলাকার আমির হামজার ছেলে আব্দুল আলীম (৩৬) ও সাবরাং ইউনিয়নের কচুবুনিয়া এলাকার আব্দুল করিমের ছেলে নজির আহমদ (৪০)।

পুলিশের ভাষ্য ঘটনাস্থলে দুই দল মাদক ব্যবসায়ীর মধ্যে গোলাগুলি হয়। ওই গোগুলিতেই তারা মারাযান।

বুধবার ভোরে সাবরাং ইউনিয়নের হারিয়াখালী এলাকায় কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কের জিরো পয়েন্ট থেকে পুলিশ তাদের লাশ উদ্ধার করে।

টেকনাফ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ বলেন, “দুই দল মাদক ব্যবসায়ীর মধ্যে ইয়াবার চালান লেনদেনকে কেন্দ্র করে গোলাগুলির ঘটনা ঘটে। স্থানীয়রা খবরটি জানালে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে মাদকচক্রের লোকজন পালিয়ে যায়।

“এ সময় দুইজনকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ঘটনাস্থলে পড়ে থাকতে দেখে পুলিশ। তাদের উদ্ধার করে টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। দুইজনই চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী এবং মাদক মামলর পলাতক আসামি।”

পুলিশ ঘটনাস্থলের আশপাশে তল্লাশি চালিয়ে তিনটি বন্দুক, আটটি গুলি ও ১০ হাজার ইয়াবা পেয়েছে বলে তিনি জানান। লাশ ময়নতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।