কক্সবাজারে আজও ২৪ জনের করোনা টেষ্ট, সবারই রিপোর্ট ‘নেগেটিভ’

কক্সবাজারে আজও ৩২ জনের করোনা টেষ্ট, সবারই রিপোর্ট ‘নেগেটিভ’

আনছার হোসেন
কক্সবাজার ভিশন ডটকম

কক্সবাজার মেডিকেল কলেজ ল্যাবে আজ সোমবারও (১৩ এপ্রিল) ২৪ জন সন্দেহভাজন রোগীর করোনাভাইরাসের নমুনা টেষ্ট হয়েছে। তবে বরাবরের মতোই আজও সবার টেষ্ট রিপোর্টই ‘নেগেটিভ’।

এ নিয়ে গত ১৩ দিনে এই ল্যাবে ২০২ জন সন্দেহভাজন রোগীর করোনা টেষ্ট হয়েছে। যাদের প্রত্যেকেরই করোনাভাইরাস ছিল ‘নেগেটিভ’। ১৩ দিনের পরীক্ষায় একজনও করোনা রোগী পাওয়া না যাওয়ায় চিকিৎসকরা সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

কক্সবাজার মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ও রক্তরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. অনুপম বড়ুয়া মনে করেন, একজন রোগী পাওয়া গেলেই আতঙ্কের। একজন থেকে তা গাণিতিক হারে বাড়তে থাকবে।

এদিকে কক্সবাজার মেডিকেল কলেজের ক্লিনিক্যাল ট্রপিক্যাল মেডিসিন বিভাগের সহকারি অধ্যাপক ডা. মো. শাহজাহান নাজির করোনাভাইরাস টেষ্টের তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, গতকাল রোববার (১২ এপ্রিল) কক্সবাজার সদর হাসপাতাল, রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরসহ জেলার ৮ উপজেলা ও পার্বত্য বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ফ্ল্যু সেন্টার থেকে মাত্র ২৪ জন সন্দেহভাজন রোগীর নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছিল। আর ওই সব নমুনা সকাল থেকে দুপুরের মধ্যে টেষ্ট করা হয়েছে। তবে প্রত্যেকটির নমুনারই রিপোর্ট ছিল ‘নেগেটিভ’।

কক্সবাজার মেডিকেল কলেজ অধ্যক্ষ ডা. অনুপম বড়ুয়া বলেন, কক্সবাজার ল্যাবে প্রতিদিন ৯৬ জন রোগীর নমুনা পরীক্ষার সুযোগ থাকলেও উপজেলা পর্যায় পর্যাপ্ত পরিমাণ নমুনা আসছে না।

তিনি জানান, সোমবার পরীক্ষা করা ২৪টি নমুনারই প্রতিবেদন ঢাকায় আইইডিসিআরে পাঠানো হয়েছে। ওখান থেকেই আনুষ্টানিক ভাবে রিপোর্ট প্রকাশ করা হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের কক্সবাজার জেলা আহবায়ক ডা. মাহবুবুর রহমান এই পর্যন্ত কক্সবাজার জেলায় কোন করোনা রোগী না পাওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। তার মতে, একজন বয়স্ক মহিলার শরীরে করোনা ভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া গেলেও তিনি এখন সুস্থ আছেন।

প্রসঙ্গত, কক্সবাজার মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবটিকে ঢাকাস্থ রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্টান (আইইডিসিআর) করোনা ভাইরাস পরীক্ষার জন্য নির্ধারণ করেছে। গত পহেলা এপ্রিল থেকে ল্যাবটি চালু হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট সুত্র মতে, প্রথম ৬ দিনে ২৪ জন, ৭ এপ্রিল ২৫, ৮ এপ্রিল ২৪ জন, ৯ এপ্রিল ২৭ জন, ১০ এপ্রিল ৩৭ জন, ১১ এপ্রিল ৯ জন, ১২ এপ্রিল ৩২ জন ও ১৩ এপ্রিল ২৪ জন সন্দেহভাজন রোগীর পরীক্ষা করা হয়েছে এই ল্যাবে। সব মিলিয়ে পরীক্ষা হওয়া রোগী সংখ্যা এখন ২০২ জন।

error: Content is protected!! অন্যের নিউজ নিয়ে আর কতদিন! এবার নিজে কিছু লিখতে চেষ্টা করুন!!