আবু সিদ্দিক ওসমানীর ভগ্নিপতি আইসিইউ’তে, মেয়ে ও বোন উখিয়া আইসোলেশনে

আবু সিদ্দিক ওসমানীর ভগ্নিপতি আইসিইউ’তে, মেয়ে ও বোন উখিয়া আইসোলেশনে

আনছার হোসেন
সম্পাদক
কক্সবাজার ভিশন ডটকম

বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্ট ও কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের আইনজীবী, জেলা বিএনপির সদস্য ও কক্সবাজার নিউজ ডটকমের বিশেষ প্রতিবেদক আবু সিদ্দিক ওসমানীর পরিবারের করোনা আক্রান্ত ৮ সদস্যের মধ্যে একমাত্র ভগ্নিপতি ও কক্সবাজার জেলা পরিষদের হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা আবদুল মান্নানের (৪৫) অবস্থা সংকটাপন্ন হয়ে পড়েছে। তাকে উখিয়ার আইসোলেশন সেন্টার থেকে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালের আইসিইউ’তে নিয়ে আসা হয়েছে।

অপরদিকে আবু সিদ্দিক ওসমানীর নিজের বড় মেয়ে তানজিম ওসমানী (১৯) ও বোন দিলরুবা ওসমানীকে (৩৭) উখিয়া আইসোলেশন সেন্টারে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

আবু সিদ্দিক ওসমানীসহ পরিবারের করোনা আক্রান্ত অন্য ৫ সদস্য নিজের বাড়িতে থেকে ‘হোম আইসোলেশনে’ চিকিৎসা চালিয়ে যাচ্ছেন।

আইনজীবী ও সাংবাদিক আবু সিদ্দিক ওসমানী নিজেই কক্সবাজার ভিশন ডটকমকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি মহান আল্লাহ তায়ালার অসীম রহমত ও করুণা কামনা করেছেন। একই সাথে তাদের সবার সুস্থতার জন্য ‘দোয়া ভিক্ষা’ চেয়েছেন।

সুত্র মতে, বাড়িতে ‘হোম আইসোলেশনে’ থাকা পরিবারের সদস্যদের মধ্যে আছেন মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী, তার স্ত্রী তসলিমা আকতার (৩৯), তার মেজো মেয়ে নাদিয়া ওসমানী জাইমা (১২), গৃহকর্মী রিনা আক্তার (১১) ও তার স্ত্রীর বড় ভাই, জেলা পরিষদের উচ্চমান সহকারি মোহাম্মদ আমান উল্লাহ।

এদের প্রত্যেকেরই করোনা রিপোর্ট ‘পজিটিভ’ এসেছে। এদের মধ্যে আবু সিদ্দিক ওসমানীসহ তাঁর পরিবারের ৫ সদস্য গত বুধবার (২৪ জুন) পজিটিভ আসে। অন্য তিনজন আগেই পজিটিভ হয়েছেন।

আবু সিদ্দিক ওসমানী নিজেই গত বুধবার (২৪ জুন) সন্ধ্যা ৬টা ৫৫ মিনিটে নিজের ফেসবুক ওয়ালে পরিবারের ৮ সদস্য করোনায় আক্রান্ত হওয়ার বিষয়টি জানিয়েছিলেন।

আবু সিদ্দিক ওসমানী তাঁর ফেসবুক ওয়ালে লিখেছেন, ‘আমি সহ আমার পরিবারের ৮ সদস্য কোভিড পজেটিভ। ও আমার আল্লাহ আমি পাপী’কে তুমি ক্ষমা করে দাও। সবার কাছে ক্ষমা ও দোয়া চাই।’

অপরদিকে কক্সবাজার জেলা পরিষদের হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা আবদুল মান্নান ইতোপূর্বে জানিয়েছিলেন, তিনি সুস্থ আছেন। তার স্ত্রীর অবস্থা ভালো ছিল না।

কিন্তু আজ বৃহস্পতিবার (২৫ জুন) আবু ছিদ্দিক ওসমানী ও তার পরিবারের অন্য সদস্যরা জানিয়েছেন, উখিয়ার সারি আইসোলেশন সেন্টারে চিকিৎসাধীন আবদুল মান্নানের অবস্থা সংকটাপন্ন হয়ে পড়েছে। তাকে আজই কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে নতুন উদ্বোধন হওয়া আইসিইউ’তে নিয়ে আসা হয়েছে।

error: Content is protected!! অন্যের নিউজ নিয়ে আর কতদিন! এবার নিজে কিছু লিখতে চেষ্টা করুন!!